রবিবার, ২৫ অক্টোবর ২০২০, ১১:৩৭ পূর্বাহ্ন

সুন্দরগঞ্জে গরু চোর সন্দেহে মধ্যযুগীয় কায়দায় কলেজ ছাত্রকে নির্যাতন গ্রেফতার-২

সুন্দরগঞ্জে গরু চোর সন্দেহে মধ্যযুগীয় কায়দায় কলেজ ছাত্রকে নির্যাতন গ্রেফতার-২

সুন্দরগঞ্জ প্রতিনিধিঃ সুন্দরগঞ্জে মধ্যযুগীয় কায়দায় এক কিশোর কলেজ ছাত্রকে গরু চুরির অপবাদে বাড়ি থেকে তুলে নিয়ে হাত-পা বেঁধে নির্যাতন করা হয়েছে।এ ঘটনায় মামলা হলে সোমবার ভোর রাতে দুজনকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।
থানা সুত্রে জানা যায়, গত শুক্রবার রাত ৮ টার দিকে উপজেলার ধুমাইটারী গ্রামের জিহাদ উদ্দিনের ছেলে নজু মিয়া’র গরু তার ছোট ভাইয়ের জামাই রহিম চুরি করে নিয়ে যায়। এ ঘটনায় রাফিকুলকে(১৬) চোর সন্দেহ করে বাড়ী থেকে তুলে নিয়ে যায় একই গ্রামের ফজলুল, ইয়াজুল ও নাজমুল। তারা রাফিকুলকে গরু চুরির অপবাদ দিয়ে ফজলুলের বাসায় সারারাত বেঁধে রাখে।
পরদিন শনিবার সকাল ৯ টায় রাফিকুলকে স্থানীয় আফসার উদ্দিন প্রামাণিকের বাড়ীতে নিয়ে যায় এবং হাত-পা বেঁধে তার ওপর মধ্যযুগীয় অমানবিক নির্যাতন চালায় তনু প্রামাণিক, তাজু প্রামাণিক, তুহিন প্রামাণিক, লেলিন প্রামাণিক, সাবু প্রামাণিক ও মুসা প্রামাণিক।এ
নির্যাতনের বিভিন্ন ছবি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছড়িয়ে পড়লে বিষয়টি সবার নজরে আসে। নির্যাতনের ফলে রাফিকুল অসুস্থ্য হয়ে পড়লে এলাকাবাসি তাকে সুন্দরগঞ্জ স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করে দেন ।রাফিকুল একই গ্রামের সিরাজুল ইসলামের ছেলে একাদশ শ্রেণীর ছাত্র।রাফিকুলকে নির্যাতনের ঘটনায় তার বড় ভাই বাদী হয়ে থানায় একটি মামলা দায়ের করেন।
এ নিয়ে সুন্দরগঞ্জ থানা অফিসার ইনচার্জ আব্দুল্লাহিল জামান ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে জানান, কিশোর নির্যাতনের ঘটনায় তার বড় ভাই বাদী হয়ে ১৩ জনকে আসামী করে গত রবিবার রাতে থানায় একটি মামলা দায়ের করেছেন। পুলিশ অভিযান চালিয়ে ২ জনকে গ্রেফতার করেন। এরা হলেন ধুমাইটারী গ্রামের বাবলু মিয়ার ছেলে রানা মিয়া ও আব্বাস আলীর ছেলে আজিজুল।

নিউজটি শেয়ান করুন

© All Rights Reserved © 2019
Desing & Developed BY ThemesBazar.Com