বুধবার, ২৮ জুলাই ২০২১, ১০:৪০ পূর্বাহ্ন

সংবাদ শিরোনাম
গাইবান্ধায় খাদ্য উৎপাদন বৃদ্ধির লক্ষ্যেঃ চলতি মৌসুমে ১ লাখ ২৮ হাজার হেক্টর জমিতে চাষ হবে রোপা আমন দোকান কর্মচারী ও ইলেকট্রিশিয়ানদের মধ্যে খাদ্য সহায়তা প্রদান অক্সিজেন কনসেনট্রেটর দিল ঢাকাস্থ গাইবান্ধা সমিতি গাইবান্ধায় বিজিবি-সেনা-পুলিশ সদস্যদের টহলঃ কঠোর লকডাউনের পঞ্চম দিনে রাস্তায় মানুষের চলাচল বৃদ্ধি গাইবান্ধায় করোনায় শনাক্ত ৬২ গাইবান্ধায় হাসান হত্যার প্রতিবাদ মঞ্চের সভা সাঘাটায় নবাগত ইউএনওর সাংবাদিকদের সাথে মতবিনিময় ফুলছড়িতে ব্রহ্মপুত্রের ব্যাপক ভাঙনঃ নদীগর্ভে ৫৫টি পরিবারের বসতবাড়ি ফসলী জমি গাইবান্ধায় ২৫টি মামলায় ২২ হাজার ৭শ’ টাকা জরিমানা কঠোর লকডাউনের চতুর্থ দিনে রাস্তায় লোক চলাচলঃ কারো মুখে মাস্ক নেই গাইবান্ধায় করোনায় নতুন শনাক্ত ৬৯

সাদুল্লাপুরে ভেঙে ফেলানো ব্রিজে বিকল্প সড়ক নেই চলাচলে চরম দুর্ভোগ

সাদুল্লাপুরে ভেঙে ফেলানো ব্রিজে বিকল্প সড়ক নেই চলাচলে চরম দুর্ভোগ

সাদুল্লাপুর প্রতিনিধিঃ সাদুল্লাপুর উপজেলার জামালপুর ইউনিয়নে পুণনির্মাণের জন্য ব্রিজ ভেঙে ফেলানো হলেও, চলাচলের জন্য দেওয়া হয়নি পাশ দিয়ে বিকল্প সড়ক। ফলে চলাচলের চরম দুর্ভোগে পড়েছেন এলাকার মানুষেরা।
সরেজমিনে জানা যায়, উপজেলার জামালপুর ইউনিয়নের খোর্দ্দ রসুলপুর মোংলাবন্দর থেকে হামিদ ম-লের ঈদগাহ মাঠ পর্যন্ত সড়কের মাঝে আজিজার মহুরী ও কপিল উদ্দিন মুন্সীর বাড়ি সংলগ্ন ডারার উপর ব্রিজটি পুণনির্মাণের জন্য ভেঙে ফেলানো হয়। ঠিকাদারী প্রতিষ্ঠানের নির্দেশে ব্রিজটি বেশ কিছু দিন আগে ভাঙানো হলেও, সেখানে দেওয়া হয়নি পাশ দিয়ে বিকল্প সংযোগ সড়ক। এমন কি অদ্যবদি ব্রিজটির নির্মাণ কাজও শুরু করা হয়নি। ফলে কয়েক গ্রামের শত শত মানুষ চলাচলে চরম দুর্ভোগ পোহাতে হচ্ছে।
বিদ্যমান পরিস্থিতি ব্রিজস্থলের সড়কের নিচ দিয়ে চলতে গিয়ে প্রতিনিয়ত ঘটছে দুর্ঘটনা। আবার কেউবা অন্য রাস্তা দিয়ে ঘুরে চলাচল করছে বলে জানা গেছে।
ওই এলাকার স্কুল শিক্ষার্থী মেহেদী হাসান বলেন, এ রাস্তা দিয়ে প্রতিদিন তাকে স্কুল যেতে হয়। সম্প্রতি ভেঙে ফেলানো ব্রিজের পাশে যাতায়াতের জন্য রাস্তা তৈরী না করায় নিচু জমি দিয়ে অতিকষ্টে তাকে পারাপার হতে হচ্ছে।
পথচারী আবু বক্কর সিদ্দিক জানান, পাশ দিয়ে বিকল্প সংযোগ সড়ক না দেওয়ায় পথচারিরা জীবনের ঝুঁকি নিয়ে সড়কের নিচের খাল দিয়ে চলাচল করছেন। জরুরীভাবে সংযোগ সড়ক তৈরীর দাবি জানান তিনি।
এ বিষয়ে জামালপুর ইউনিয়ন পরিষদ (ইউপি) চেয়ারম্যান নুরুজ্জামান ম-ল জানান, এই ব্রিজটি নির্মাণে ঠিকাদার কে, তা জানা নেই। খতিয়ে দেখে যাতায়াতের ব্যবস্থা করা হবে।

নিউজটি শেয়ান করুন

© All Rights Reserved © 2019
Desing & Developed BY ThemesBazar.Com