শনিবার, ২০ এপ্রিল ২০২৪, ০৯:৫৫ পূর্বাহ্ন

সাঘাটায় করোনা টিকার জন্য শিক্ষার্থীদের বিক্ষোভ

সাঘাটায় করোনা টিকার জন্য শিক্ষার্থীদের বিক্ষোভ

স্টাফ রিপোর্টারঃ সাঘাটা উপজেলার মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের শিক্ষার্থীরা করোনা প্রতিরোধক টিকা না পেয়ে উপজেলা পরিষদের সামনে অবস্থান নিয়ে বিক্ষোভ করেছে। টিকা প্রদানের কথা বলে গতকাল সোমবার উপজেলা সদর ডাববাংলোয় ডাকা হলেও উপস্থিত শত শত শিক্ষার্থীর ভাগ্যে টিকা জোটেনি। ফলে টিকা না পাওয়া শিক্ষার্থীরা বিক্ষুব্ধ হয়ে ওঠে।
সাঘাটা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স সূত্রে জানা যায়, সারাদেশ ব্যাপী ১২ থেকে ১৭ বছর বয়সের শিক্ষার্থীদের করোনা ভাইরাস প্রতিরোধক দ্বিতীয় ডোজ টিকা প্রদানের কার্যক্রম চলছে। এই কর্মসূচীর অংশ হিসেবে গতকাল সোমবার উপজেলা সদর বোনারপাড়ায় ডাকবাংলো টিকাদান কেন্দ্রে স্থানীয় কাজী আজহার আলী, জিপি শহর, রামনগর, পদুমশহর, নয়াবন্দর, বোনারপাড়া ইসলামিয়া, কচুয়া ও ভাঙ্গামোড় এ ৮টি উচ্চ বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের ডাকা হয়। বিভিন্ন স্কুল কলেজ ও মাদ্রসার শত শত শিক্ষার্থী টিকা কেন্দ্র উপস্থিত হয়ে টিকা নেয়ার জন্য সকাল ৮ থেকে বেলা ২ টা পর্যন্ত দীর্ঘ সময় লাইনে দাঁড়িয়ে থাকে। বেলা ২টা পর্যন্ত টিকা দেয়ার পর টিকা কর্মীরা উপস্থিত শত শত শিক্ষার্থীকে টিকা না দিয়ে টিকা প্রদান কার্যক্রম বন্ধ করেন। ফলে দীর্ঘ সময় দাঁড়িয়ে থাকা শিক্ষার্থীদের মধ্যে ক্ষোভের সৃষ্টি হলে তারা বিক্ষোভ উপজেলা পরিষদের সামনে অবস্থান নেয়। পরে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা সরদার মোস্তফা শাহিন পরর্তীতে টিকা দেয়ার আশ্বাস দিলে শিক্ষার্থীরা ফিরে যায়।
এব্যাপারে সাঘাটা উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডাঃ আরিফুজ্জামানের সাথে কথা হলে তিনি জানান, পর্যায়ক্রমে শিক্ষার্থীদের টিকা দেয়া হচ্ছে এবং হবে। সে অনুযায়ী শিক্ষা অফিস থেকে পর্যায় ক্রমে শিক্ষার্থীদের তালিকা চাওয়া হয়েছে। শিক্ষা অফিসের দেয়া চাহিদা অনুযায়ী সোমবার উপজেলার ৮টি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের ৩ হাজার শিক্ষার্থীর জন্য টিকা সরবরাহ করা হয়েছে। সেকারণে ডাকবাংলো টিকা কেন্দ্রে ৩ হাজার শিক্ষার্থী উপস্থিত হওয়ার কথা। সেখানে অধিক সংখ্যক শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের শিক্ষার্থীর উপস্থিত হওয়ার ফলে টিকার সংকট হয়েছে।
উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসার আজিজুল হক অধিক সংখ্যক প্রতিষ্ঠানের শিক্ষার্থী টিকা নিতে আসা এবং তাদের বিক্ষোভের কথা স্বীকার করে বলেন, শিক্ষকদের দায়িত্বহীনতার কারণে এধরণের ঘটনা ঘটেছে।

Thank you for reading this post, don't forget to subscribe!

নিউজটি শেয়ান করুন

© All Rights Reserved © 2019
Desing & Developed BY ThemesBazar.Com