শুক্রবার, ৩০ অক্টোবর ২০২০, ০৯:৪২ অপরাহ্ন

সংবাদ শিরোনাম
চরাঞ্চলের মানুষের দুঃখ দূর্দশা লাঘবের জন্য চর উন্নয়ন বোর্ড করা দরকার -ডেপুটি স্পীকার প্রেমের ফাঁদে ফেলে ১৬ বছরের কিশোরীকে ধর্ষণঃ ধর্ষক গ্রেফতার হেড ফোন কানেঃ ট্রেনের ধাক্কায় প্রান গেলে যুবকের দুর্যোগ সহনীয় ঘর পেয়ে আনন্দিত ভিক্ষুক শুকুর আলী ধাপেরহাটে র‌্যাব ও ভোক্তা অধিকারের যৌথ অভিযান ৪ আলু ব্যাবসায়ীর ৫০ হাজার টাকা জরিমানা ধাপেরহাটে ১০ দিনে ৭টি বাসা ও ব্যবসা প্রতিষ্ঠান দুঃসাহসিক চুরি গাইবান্ধায় তিনদিনব্যাপী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি মেলা সমাপ্ত ধর্ষণ মামলার আসামী মুক্তি পেয়ে বাদীকে প্রাণনাশের হুমকি শহরের ডিবি রোড চলাচলের অযোগ্যঃ পথচারীদের দুর্ভোগ কিন্ডার গার্টেন স্কুলের শিক্ষকদের মানববন্ধন স্মারকলিপি প্রদান

গোবিন্দগঞ্জ-দিনাজপুর সড়ক অবরোধ

গোবিন্দগঞ্জ-দিনাজপুর সড়ক অবরোধ

গোবিন্দগঞ্জ প্রতিনিধিঃ গোবিন্দগঞ্জে রংপুর চিনিকলের বিরোধপূর্ণ জমি পাহারায় নিয়োজিত আনছার সদস্যদের হামলায় সাহেবগঞ্জ বাগদাফার্ম ভূমি পূনরুদ্ধার সংগ্রাম কমিটির সদস্য আব্দুল খালেক গুরুতর আহত হয়েছেন। গতকাল রোববার সকাল ৯টার দিকে এ হামলার ঘটনা ঘটে। প্রতিবাদে সাহেবগঞ্জ বাগদাফার্ম ভূমি পূনরুদ্ধার সংগ্রাম কমিটির লোকজন সকাল সাড়ে ৯টা থেকে গোবিন্দগঞ্জ-দিনাজপুর আঞ্চলিক সড়ক প্রায় আড়াই ঘন্টাব্যাপি অবরোধ করে রাখে। এসময় রাস্তার দুপাশে সকল যান চলাচল বন্ধ হয়ে যায়।
জানা গেছে, সাহেবগঞ্জ বাগদাফার্ম ভূমি পূনরুদ্ধার সংগ্রাম কমিটির সদস্য আব্দুল খালেক গতকাল রোববার সকালে বাগদা বাজারে যাচ্ছিল। পথিমধ্যে সাহেবগঞ্জ ইক্ষুখামারের অফিস সংলগ্ন আম বাগানে পৌঁছালে আক্রোশ বসতঃ কয়েকজন আনছার সদস্য খালেককে ধরে অফিসের ভিতরে নিয়ে বেধরক মারপিট করে। এতে তিনি মাথায় আঘাতসহ গুরুতর আহত হন।
সাহেবগঞ্জ বাগদাফার্ম ভূমি পূনরুদ্ধার সংগ্রাম কমিটির সভাপতি ডাঃ ফিলিমন বাস্কে বলেন, আব্দুল খালেক বাগদা বাজারে যাওয়ার পথে আনছার সদস্যরা পথরোধ করে তাকে ধরে ক্যাম্পে নিয়ে মারধর করে গুরুতর আহত করে। আনছার সদস্যরা অতি উৎসাহিত হয়ে মাঝে মধ্যে সাহেবগঞ্জ বাগদাফার্ম ভূমি পূনরুদ্ধার সংগ্রাম কমিটির লোকজনকে মারধর করছে।
সাহেবগঞ্জ ইক্ষুখামারের আনছার সদস্যদের পিসি মোঃ জহুরুল ইসলাম মারপিটের অভিযোগ অস্বীকার করে বলেন, গত বুধবার সকালে সাঁওতালদের কয়েকজন লোক পুকুরে বর্শি দিয়ে মাছ শিকার করছিল। মাছ শিকারে তাদের বাধা দিলে তারা চলে যায়। পরবর্তীতে সাঁওতালরা আবারো মাছ ধরতে আসে এবং আব্দুল খালেক তাদের পাহারা দিতে থাকে। মাছ ধরাকে কেন্দ্র করে আনছার সদস্যদের সাথে খালেকের বাকবিতন্ডা হয়। একপর্যায়ে খালেক ক্ষিপ্ত হয়ে আনছার সদস্য আতিকুর রহমান ও হাফিজুর রহমানের শার্টের কলার ধরে টানাঁেহচড়া করতে থাকে এবং মাটিতে পড়ে গিয়ে খালেক মাথায় আঘাত পায়।
খবর পেয়ে থানা পুলিশ ও উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা রামকৃষ্ণ বর্মণ ঘটনাস্থলে গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রনের চেষ্ট করে। পরবর্তীতে স্থানীয় সংসদ সদস্য আলহাজ প্রকৌশলী মনোয়ার হোসেন চৌধুরী ও উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান আব্দুল লতিফ প্রধান ঘটনাস্থলে গিয়ে ঘটনায় জড়িত আনছার সদস্যদের বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণের আশ্বাস দিলে সাঁওতালরা অবরোধ তুলে নেয়।
সংসদ সদস্য আলহাজ প্রকৌশলী মনোয়ার হোসেন চৌধুরী বলেন, আহত আব্দুল খালেকের চিকিৎসার ব্যবস্থা করা হয়েছে। জড়িত আনছার সদস্যদের বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণের আশ্বাস দিলে সাঁওতালরা তাদের অবরোধ তুলে নেয়।

নিউজটি শেয়ান করুন

© All Rights Reserved © 2019
Desing & Developed BY ThemesBazar.Com