বৃহস্পতিবার, ২১ জানুয়ারী ২০২১, ১১:৩০ পূর্বাহ্ন

গাইবান্ধা জেলায় ৮ হাজার হেক্টর জমিতে সবজি চাষ

গাইবান্ধা জেলায় ৮ হাজার হেক্টর জমিতে সবজি চাষ

স্টাফ রিপোর্টারঃ গাইবান্ধায় ৮ হাজার হেক্টর জমিতে সবজি চাষ । কৃষি ভা-ার জেলা হিসেবে পরিচিত গাইবান্ধা। চলতি রবি মৌসুমে এ জেলার ৭ উপজেলায় ৮ হাজার হেক্টর জমিতে শাক-সবজি চাষের লক্ষ্যমাত্রা নির্ধারণ করা হয়েছে। এখন পর্যন্ত প্রায় ৩ হাজার হেক্টর জমিতে সবজি চাষ করা হয়েছে।
জানা যায়, চলতি বছরে গাইবান্ধায় ভয়াবহ বন্যা, ভারী বর্ষণ ও নিম্নচাপের প্রভাবে কৃষকদের ধান, পাট ও শাক-সবজিসহ অন্যান্য ফসলের ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে। এসব ক্ষতি পূষিয়ে নিতে সম্প্রতি কৃষকরা ঝুঁকে পড়ছেন শীতকালীন সবজি চাষে। সেই সঙ্গে গত বছরের তুলনা এ বছরে কাঁচা তরকারির দাম বেশী থাকায় শাক-সবজি চাষে প্রান্তিক কৃষকদের আগ্রহ বেড়েছে অনেকটাই।
বন্যার ক্ষতি পূষিয়ে নিতে সম্প্রতি কৃষকরা ঝুঁকে পড়ছেন শীতকালীন সবজি চাষে
তারা আলু, লাউ, বেগুন, সিম, কপি, মূলা, পালং শাক, লাল শাক ও সরিষা শাকসহ বিভিন্ন ধরণের শাক-সবজি চাষাবাদ করছেন। এরইমধ্যে কয়েকজন কৃষক তাদের উৎপাদিত শীতকালীন সবজি হাট-বাজারে বিক্রিও শুরু করেছেন।
রবিশস্য চাষাবাদ ও উৎপাদন আগামী বছরের মার্চ মাস পর্যন্ত চলবে বলে জানিয়েছেন কৃষকরা।
সরেজমিনে গত ২০ নভেম্বর মাঠপর্যায়ে কৃষক আলাউদিন, খাজা মিয়া ও জমির ব্যাপারী জানান, ইতিপুর্বে প্রাকৃতিক দুর্যোগে ব্যাপক ফসলহানী হয়েছে। সেটি পুষিয়ে নিতে শাক-সবজি চাষ করছি। আবহাওয়া অনুকূল থাকলে বাম্পার ফলন পাওয়া যেতে পারে। একই সঙ্গে বাজারে দাম ভালো পাওয়া গেলে লাভবান হওয়ার সম্ভাবনাও রয়েছে।
গাইবান্ধা কৃষি বিভাগের উপ-পরিচালক মাসুদুর রহমান বলেন, চলতি রবি মৌসুমে ৮ হাজার হেক্টর জমিতে শাক-সবজি চাষের লক্ষ্যমাত্রা নেওয়া হয়। প্রায় ৩ হাজার হেক্টর অর্জিত হয়েছে। এসব কৃষকদের প্রণোদনা দেওয়াসহ তাদের লাভবান করতে মাঠপর্যায়ে সর্বাত্মকভাবে চেষ্টা করা হচ্ছে।
তিনি আরো বলেন, গত বছর সাড়ে ৬ হাজার হেক্টর জমিতে সবজি চাষ করেছিলেন কৃষকরা। তবে এ বছরে সবজি চাষে আগ্রহ বেশী। তাই লক্ষ্যমাত্রা ছাড়িয়ে যেতে পারে।

নিউজটি শেয়ান করুন

© All Rights Reserved © 2019
Desing & Developed BY ThemesBazar.Com