সোমবার, ২৬ অক্টোবর ২০২০, ০৯:৫১ অপরাহ্ন

গাইবান্ধায় কৃষক সমিতির মানববন্ধন

গাইবান্ধায় কৃষক সমিতির মানববন্ধন

স্টাফ রিপোর্টারঃ সরকার নির্ধারিত রেট ১০৪০ টাকায় ইউনিয়ন পর্যায়ে সরাসরি কৃষকের নিকট থেকে ধান ক্রয় ,অস্থায়ী ওএমএস কার্ড বাতিল করে স্থায়ী রেশন কার্ডে রুপান্তর,এনজিও ঋণের উপর কিস্তি আদায় বন্ধের সরকারি প্রজ্ঞাপন জারি উপেক্ষা করে ঋন আদায়কারীদের শাস্তির দাবি,সকল প্রকার কৃষিঋণের সুদ মওকুপের দাবিতে বাংলাদেশ কৃষক সমিতি গাইবান্ধা জেলা কমিটির উদ্যোগে শহরের ১নং ট্রাফিক মোড়ে মানববন্ধন কর্মসূচী পালন করা হয়। গতকাল শারীরিক দুরত্ব বজায় রেখে এই কর্মসূচী পালন করা হয়।
মানববন্ধন চলাকালে বক্তব্য রাখেন জেলা কৃষক সমিতির সহ-সভাপতি ওয়াজিউর রহমান রাফেল, সাধারণ সম্পাদক ছাদেকুল ইসলাম, জাহাঙ্গীর মাষ্টার, জাহাঙ্গীর মন্ডল প্রমুখ।
এসময় নেতৃবৃন্দ বলেন, সরকার নির্ধারিত ১০৪০ টাকা রেটে ইউনিয়ন পর্যায়ে সরাসরি কৃষকের নিকট থেকে ধান ক্রয়ের দাবি জানান। তারা বলেন, সরকারের নির্ধারিত রেটে ধান বিক্রি করতে না পারলে কৃষকের উৎপাদন ব্যয় উঠবে না। ফলে করোনার এই দুঃসময়ে কৃষকরা জীবন বাজি রেখে ধানের যে উৎপাদন করলো তার সুফল থেকে আবারও তারা বঞ্চিত হবেন। বক্তারা বলেন,সরকার আগামি ৩০ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত এনজিও ঋণের উপর কিস্তি আদায় বন্ধের সরকারি প্রজ্ঞাপন জারি করেছে। কিন্ত প্রজ্ঞাপন উপেক্ষা করে অনেক এনজিও ঋনের কিস্তি আদায় অব্যাহত রেখে চাপ প্রয়োগ করে চলেছে। এতে করে নি আয়ের মানুষেরা চরম বিপাকে পড়েছেন। বক্তারা করোনা শেষ না হওয়া পর্যন্ত এনজিও কিস্তি আদায়ের মেয়াদ বাড়ানোসহ সকল প্রকার কৃষিঋনের সুদ মওকুপের দাবি জানান। বক্তারা আরও বলেন,অস্থায়ী ওএমএস কার্ড বাতিল করে স্থায়ী রেশন কার্ডে রুপান্তর করে কৃষকসহ নিম্ম আয়ের সকল মানুষের মধ্যে বিতরণ করতে হবে। বৈশ্বিক মহামারি করোনা ভাইরাসের ভয়াবহতা নিয়ন্ত্রণে এসময় নেতৃবৃন্দ বলেন, বিশ্বব্যাপী এই সমস্যা সমাধানে রাজনীতি না করে চিকিৎসার সাথে সংশ্লিষ্ট ডাক্তারসহ সকল পেশাজীবি সংগঠন, রাজনৈতিক দল, সামাজিক সাংস্কৃতিক দলের সমন্বতি উদ্যোগ গ্রহণ করা জরুরী।

নিউজটি শেয়ান করুন

© All Rights Reserved © 2019
Desing & Developed BY ThemesBazar.Com